আজ, , ২৫শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

সংবাদ শিরোনাম :





শিশুর পায়ের অংশ নিয়ে কুকুরের ছোটাছুটি, গর্তে মিলল ৩ লাশ

ডেস্ক রিপোর্ট :: একটি গর্ত থেকে মাটিচাপা অবস্থায় এক নারী ও দুই শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার বিকাল ৩টার দিকে ময়মনসিংহের ত্রিশাল উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের কাকচর নয়াপাড়ার হাইঞ্জা মোড়লের বাড়ির মসজিদের সামনের একটি পতিত জমির আইল ঘেঁষা গর্ত থেকে লাশ তিনটি উদ্ধার করা হয়। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন ময়মনসিংহের পিবিআই, র্যাব ও পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

এলাকাবাসীর সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, দুপুর ১টার দিকে কুকুর অজ্ঞাত শিশুর পায়ের অংশবিশেষ নিয়ে ছোটাছুটি করছিল। এটি দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেন। পরে লোকজন এসে দেখেন একটি গর্তে আরও দুটি লাশ রয়েছে; যা পচে দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছে। দুপুর ২টার দিকে ত্রিশাল থানা পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে।

 

থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কামাল হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে এলাকাবাসীর সহায়তায় এক নারী ও দুই শিশুর গলিত লাশ উদ্ধার করে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, কয়েক দিন আগে হত্যার পর কেউ লাশ গর্ত করে মাটিচাপা দিতে পারে। হত্যার কারণ ও নিহতদের পরিচয় শনাক্তে পুলিশ কাজ করছে বলেও জানান তিনি।

 

রামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আপেল মাহমুদ যুগান্তরকে বলেন, মরদেহগুলো পচে দুর্গন্ধ হয়ে গেছে। ধারণা করা হচ্ছে সপ্তাহ খানেকেরও বেশি সময় আগে তাদের কেউ হত্যা করে পুঁতে রেখেছে। মনে হচ্ছে এদের অন্য কোনো এলাকা থেকে এনে এখানে পুঁতে রাখা হয়েছে।

 

ময়মনসিংহ জেলা পিবিআইয়ের পুলিশ সুপার মো. রকিবুল আক্তার বলেন, কাকচর নয়াপাড়ার একটি দুর্গম এলাকায় লোকালয় থেকে বেশ কিছুটা দূরে তিনটি মরদেহ উদ্ধার হয়। একজন মহিলা এবং দুটি ছেলের। মহিলার বয়স আনুমানিক ত্রিশ থেকে পঁয়ত্রিশ ও ছেলে দুটির বয়স তিন থেকে চার বছর হবে। আমাদের ধারণা আনুমানিক পাঁচ দিন আগে তাদের এখানে পুঁতে রাখা হয়েছে। এখন পর্যন্ত মরদেহের পরিচয় শনাক্ত করা যায়নি। আমরা পিবিআই, র্যাব সবাই টেকনোলজি কাজে লাগিয়ে দ্রুত এ মরদেহ তিনটির পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা করছি।

এখানে ক্লিক করে শেয়ার করুণ